লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে বিশিষ্টজনদের শোক

বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও ট্রান্সকম গ্রুপের চেয়ারম্যান লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন মন্ত্রী, সাংসদ, ব্যবসায়ীসহ সমাজের বিশিষ্ট-জনেরা। আজ বুধবার বেলা সাড়ে ১১টায় কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেন লতিফুর রহমান (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। শোকবার্তায় অর্থমন্ত্রী দেশের অর্থনীতিতে মরহুমের অবদানের কথা স্মরণ করেছেন।

গভীর শোক প্রকাশ করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। শোকবার্তায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী দেশের অর্থনীতিতে লতিফুর রহমানের অবদানের কথা কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ করে তাঁর রুহের মাগফিরাত কামনা করেছেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন।

গভীর শোক প্রকাশ করে মরহুমের শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে পৃথক শোকবার্তা পাঠিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, প্রবাসী-কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান-মন্ত্রী ইমরান আহমদ, তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান, পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক ও একই মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম তাঁর শোকবার্তায় মরহুমের আত্মার মাগফিরাত কামনা করেছেন।

দেশের ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের পরিচালকের দায়িত্বও পালন করেছেন শিল্পপতি লতিফুর রহমান। তাঁর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন সংগঠনটির বর্তমান সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম। শোকবার্তায় তিনি বলেছেন, লতিফুর রহমানের মৃত্যু দেশ ও জাতির জন্য এক অপূরণীয় ক্ষতি। তাঁকে হারিয়ে আমরা শোকাহত।

লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ডিসিসিআই) গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়েছে। এক শোক বার্তায় ঢাকা চেম্বারের সভাপতি শামস মাহমুদ বলেন, দেশের ব্যবসা-বাণিজ্যের উন্নয়ন, বিনিয়োগ সম্প্রসারণ এবং বিশেষ করে বেসরকারি খাতে কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে তিনি অসামান্য অবদান রেখে গেছেন।

গভীর শোক প্রকাশ করেছেন বিজনেস ইনিশিয়েটিভ লিডিং ডেভেলপমেন্টের (বিল্ড) চেয়ারপারসন আবুল কাসেম খান ও ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য ও কর্মীরা। এক শোক বার্তায় বিল্ডের পক্ষ থেকে বলা হয়, দেশের বাণিজ্য, কর্মসংস্থান সৃষ্টি, শিল্পায়ন, ব্যবসায় উদ্যোগ ও সামাজিক উন্নয়নে তার অবদান সর্বদা স্মরণীয় হয়ে থাকবে।

শোক প্রকাশ করেছে আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স ইন বাংলাদেশ (অ্যামচেম)। সংগঠনটি বলেছে, লতিফুর রহমানের মৃত্যু শুধু তাঁর পরিবার নয়, পুরো জাতির জন্য বড় ক্ষতি।

গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করে পৃথক শোকবার্তা পাঠিয়েছেন দেশের অন্যতম বড় শিল্প গোষ্ঠী বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহান। শোকবার্তায় তিনি বলেছেন, দেশের শিল্প-বাণিজ্যের অন্যতম পথিকৃৎ লতিফুর রহমান বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে এক গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে গেছেন। নতুন প্রজন্মের উদ্যোক্তাদের মাঝে তিনি সব সময় অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে বেঁচে থাকবেন।

প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আহসান খান চৌধুরী এক শোক বার্তায় বলেন, লতিফুর রহমান ছিলেন দেশের একজন সফল ব্যবসায়ী। ব্যবসায়ে নীতি নৈতিকতার চর্চা করেও যে সফল হওয়া যায়, তার প্রকৃষ্ট উদাহরণ লতিফুর রহমান।

বিশিষ্ট এই ব্যবসায়ীর মৃত্যুতে বিএনপির পক্ষ থেকে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর পাঠানো শোকবার্তায় ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, কর্মক্ষেত্রে সততা ও নিষ্ঠার জন্য তিনি সর্বমহলে সুনাম অর্জন করেছিলেন। দেশের শীর্ষস্থানীয় দুটি দৈনিক প্রথম আলো ও ডেইলি স্টার-এর মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান হিসেবে লতিফুর রহমান বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলেন। দেশ ও দশের জন্য তাঁর অবদান মানুষ কৃতজ্ঞচিত্তে স্মরণ রাখবে। তিনি খুব তাড়াতাড়ি চলে গেলেন। বিএনপির মহাসচিব ছাড়াও দলটির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন বলে শোকবার্তায় জানানো হয়েছে।

জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান জি এম কাদের এক শোকবার্তায় বলেছেন, লতিফুর রহমান ছিলেন একজন সফল মানুষ। তিনি ট্রান্সকম গ্রুপ প্রতিষ্ঠা করে খাদ্য-পণ্য, ওষুধ, ইলকেট্রনিকস সামগ্রীসহ বিভিন্ন খাতে ব্যবসা সম্প্রসারিত করে দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে ব্যাপক অবদান রেখেছেন। একই সঙ্গে দৈনিক প্রথম আলো ও ডেইলি স্টার-এর মতো পাঠক-নন্দিত গণমাধ্যম পরিচালনা করেছেন। লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে যে শূন্যতা সৃষ্টি হয়েছে, তা সহসা পূরণ হওয়ার নয়।

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জাসদের পক্ষে সংগঠনটির সভাপতি হাসানুল হক ইনু ও সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার শোক প্রকাশ করে বলেছেন, ব্যবসায় সততার অনুশীলন এবং শিক্ষাসহ বিভিন্ন সামাজিক উদ্যোগ গ্রহণ ও সামাজিক কর্তব্য পালনের জন্য প্রয়াত লতিফুর রহমান চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবেন।

লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে রাজনৈতিক দল জাতীয় পার্টির (জেপি) পক্ষ থেকে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন দলটির চেয়ারম্যান ও বর্তমান সাংসদ আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এবং সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক শিক্ষামন্ত্রী শেখ শহীদুল ইসলাম। শোকবার্তায় তাঁরা বলেছেন, লতিফুর রহমান ছিলেন এ দেশের একজন বিশিষ্ট শিল্পপতি ও ব্যবসায়ী। তাঁর মৃত্যুতে জাতি একজন সফল শিল্প উদ্যোক্তাকে হারাল।

গভীর শোক প্রকাশ করেছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমির মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই। শোকবার্তায় তিনি বলেছেন, মরহুম লতিফুর রহমান বাংলাদেশের একজন সফল উদ্যোক্তা ও ব্যবসায়ী। ব্যবসা পরিচালনার ক্ষেত্রে নীতি-নৈতিকতা, সুনাম আর সততার ক্ষেত্রে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তিনি। বাংলাদেশে স্বাধীন ও নিরপেক্ষ গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রেও তিনি অসামান্য অবদান রেখেছেন।

লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন বাংলাদেশ পরিবেশ আইনজীবী সমিতির (বেলা) প্রধান নির্বাহী সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান।

গণমাধ্যমের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের পক্ষ থেকেও গভীর শোক প্রকাশ করা হয়েছে। ফোরামের সভাপতি শহীদুল ইসলাম পাইলট ও সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর যৌথ বিবৃতিতে বলেছেন, তাঁর মৃত্যুতে গণমাধ্যম শিল্প বিস্তারে অপূরণীয় ক্ষতি হলো। প্রথম আলো ও ডেইলি স্টার-এর সঙ্গে সম্পৃক্ত ব্যক্তিরা একজন গণমাধ্যম উন্নয়নের চিন্তাশীল বটবৃক্ষকে হারাল।

নতুনধারা বাংলাদেশের পক্ষ থেকে সংগঠনটির চেয়ারম্যান মোমিন মেহেদী, প্রেসিডিয়াম সদস্য অধ্যাপক শুভংকর দেবনাথ, সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান শান্তা ফারজানা, ভাইস চেয়ারম্যান চন্দন সেনগুপ্ত, ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব নিপুন মিস্ত্রি শোক প্রকাশ করে যৌথ বিবৃতি দিয়েছেন। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের ব্যবসা খাতে অনন্য অবদানের জন্য নিবেদিত মানুষ ছিলেন লতিফুর রহমান। নতুন প্রজন্মের প্রতিনিধিরা তাঁর কর্মকাণ্ডকে আজীবন স্মরণীয় করে রাখতে কাজ করবেন।

লতিফুর রহমানের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন প্রাণ-আরএফএল গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আহসান খান চৌধুরী।

Spread the love
  • 3.9K
  • 2.2K
  • 2.1K
  • 2K
  •  
  •  
  •  
    10.3K
    Shares

amaderdinkal.com

ডেস্ক রিপোর্ট

%d bloggers like this: