অনুমোদন ছাড়া মাস্ক তৈরি, গ্রেপ্তার ৫

অনুমোদন ছাড়া মাস্ক তৈরি ও বিক্রি করায় ৫ জনকে গ্রেপ্তার করেছে সিআইডি। ছবি: সংগৃহীতনারিন্দার ভূতের গলিতে একজন ব্যাগ ব্যবসায়ীসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। সিআইডি বলছে, গ্রেপ্তারকৃতরা অনুমোদন ছাড়াই মাস্ক তৈরি করছিলেন।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সিআইডি জানায়, সোমবার রাতে সিআইডির আট সদস্যের একটি দল ঢাকার ওয়ারী এলাকার নারিন্দা ভূতের গলি এলাকা থেকে সানরাইজ ব্যাগ কোম্পানির মালিক খালিদ ইমরান, মোহাম্মদ রেহান ইউসুব, মোহাম্মদ আবদুল সোবহান, জিতু চন্দ্র দাস ও মোহাম্মদ ওসমান গণিকে গ্রেপ্তার করে। দলের নেতৃত্ব দেন রাজীব ফারহান।

রাজীব প্রথম আলোকে বলেন, খালিদ ইমরান তাঁর কারখানায় আগে ব্যাগ বানাতেন। ব্যাগের ব্যবসা খারাপ হওয়ায় এখন ওই কারখানাতেই মাস্ক বানান। তারপর নামী ব্র্যান্ডের প্যাকেটে ভরে বিক্রি করেন। জিজ্ঞাসাবাদে তিনি আতিক ইন্টারন্যাশনাল নামের একটি বড় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে সার্জিক্যাল মাস্ক সরবরাহ করেছেন। তাঁর কারখানায় আধুনিক যন্ত্রপাতি আছে। ধারণা করা হচ্ছে, তিনি প্রতিদিন ৩৫ থেকে ৪০ হাজার সার্জিক্যাল মাস্ক তৈরি করে থাকেন।

অভিযানে প্রায় ১ লাখ ৪০ হাজার মাস্ক উদ্ধার করে সিআইডি। এ সময় এক হাজার কেজি মাস্ক তৈরির ফেব্রিকসও জব্দ করা হয়। সিআইডি বলছে, উদ্ধার হওয়া মালামালের দাম সাড়ে ২৩ লাখ টাকা।

রাজীব জানান, মাস্কের ব্যবসার জন্য জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র খালিদ দেখাতে পারেননি।

গ্রেপ্তারকৃতদের বিরুদ্ধ ওয়ারী থানায় প্রতারণার মামলা করেছে সিআইডি। তবে প্রশ্নের জবাবে সিআইডির কর্মকর্তারা বলেছেন, মাস্ক বানানোর ক্ষেত্রে কী কী শর্ত মানতে হবে, সে সম্পর্কে কোনো নির্দেশনা না থাকায় অনেকেই এমন মাস্ক বানাচ্ছেন। এতে স্বাস্থ্যঝুঁকি তৈরি হচ্ছে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

amaderdinkal.com

ডেস্ক রিপোর্ট

%d bloggers like this: